মহিপুর থানায় মাদকসেবী আত্মসমর্পনও পূনবাসন কর্মসূচী ॥

0
31


হাফিজুর রহমান আকাশ, কুয়াকাটা প্রতিনিধি ॥
মহিপুর থানায় তিন মাদকসেবী আত্মসমর্পন করে পুরুস্কার পেয়েছে। শনিবার বিকাল তিনটায় মহিপুর থানার নিচ তলায় দরিদ্র মাদকসেবাী পূনবাসন কর্মসূচী অনুষ্ঠানে তারা আত্মসমর্পন করেন। এসময় মাদকসেবী মোঃ রাসেল বয়াতীকে নগদ ৫ হাজার টাকা, মোঃ বাবু হাওলাদারকে একটি ভ্যানগাড়ি, মোঃ হাবিব মুন্সীকে একটি সেলাই মেশিন তুলে দেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি পটুয়াখালী জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাহফুজুর রহমান।

অনুষ্ঠানে মহিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ সোহেল আহম্মদ’র সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন কুয়াকাটা পৌরসভার মেয়র ও পৌর আওয়ামী লীগ সভাপতি আঃ বারেক মোল্লা, লতাচাপলী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মোঃ আনছার উদ্দিন মোল্লা, ধুলাসার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ সভাপতি আঃ জলিল আকন, মহিপুর প্রেসক্লাব সভাপতি মোঃ মনিরুল ইসলাম, বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী ও সমাজ সেবক মোঃ শাহআলম হাওলাদার প্রমুখ। এছাড়াও মহিপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মোঃ নুরুল ইসলাম হাওলাদার, লতাচাপলী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি ডাঃ মোঃ সিদ্দিকুর রহমান বিশ্বাস, কুয়াকাটা প্রেসক্লাব সাধারণ সম্পাদক কাজী সাঈদ, লতাচাপলী ইউপি সদস্য মোঃ জাফর উদ্দিন কুতুব মৃধা, সাংবাদিক হোসাইন আমির, হাফিজুর রহমান আকাশ, শহিদুল ইসলাম সৈকত, খান বেলাল, মহিপুর থানা পুলিশের সকল সদস্য সহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার শতাধীন মানুষ উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান সঞ্চালকের দায়িত্ব পালন করেন এসআই মোঃ এনায়েত হোসেন।

আত্মসমর্পনকৃতরা হলেন, মহিপুর থানার মহিপুর সদর ইউনিয়নের কমরপুর গ্রামের মোঃ ইউনুচ বয়াতীর ছেলে মোঃ রাসেল বয়াতী, বিপিনপুর গ্রামের মোঃ শহিদ হাওলাদারের ছেলে মোঃ বাবু হাওলাদার এবং কুয়াকাটা পৌরসভার পশ্চিম কুয়াকাটা গ্রামের আঃ গফ্ফার মুন্সীর ছেলে মোঃ হাবিব মুন্সী।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে এ সকল মাদকসেবীদের এপথ থেকে ফিরে আসার জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, এ অঞ্চলে এখনও যারা মাদকসেবন তথা ব্যবসার সাথে জড়িত আছে তাদেরকে ফিরে আসার জন্য অনুরোধ করেন। মাকদসেবীরা ফিরে আসলে তাদেরও পুনবাসন করার পাশাপাশি তাদের বিরুদ্ধে চলমান মাদক মামলায় আইনী সহায়তা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here